কচুয়ায় ব্যক্তিগত ও নির্বাচনের প্রয়োজনে যুবলীগকে ব্যাবহারের অভিযোগ-রুবেল আহমেদ

কচুয়া উপজেলার কোনো ইউনিয়ন যুবলীগের কমিটিতো শুধু একজন সভাপতি আর একজন সাধারণ সম্পাদক দিয়েই গঠিত হয়নি।
প্রতিটি কমিটিতে মূল দুইজনের সাথে আরো কয়েকজন সম্পাদক ও সম্মানিত সদস্য নিয়ে পূর্ণাঙ্গ একটি কমিটি আছে।

অনেক ইউনিয়নের সভাপতি সাধারণ সম্পাদকেরা দায়িত্বপ্রাপ্ত হওয়ার পর থেকে অদ্যাবধি নিজের ইউনিয়নে তাদের নেতৃত্বে একটি সভাও সাংগঠনিক সমাবেশ আহবান করতে সক্ষম হননি। অথচ সেসব নেতাদের কেউ কেউ আপনাদের নিয়মিত সভা গুলোতে উপস্থিত হয়ে গলাবাজি করার মাধ্যমে নিজের সাংগঠনিক দায়বদ্ধতা শেষ করছেন। আর আপনারা তাদের এসব অপ-রাজনীতির বৈধতা দিয়ে যাচ্ছেন।

এসব বিষয়ে উপজেলা যুবলীগ নেতৃবিন্দের কাছে ব্যাপক অভিযোগ থাকার পরও, আপনারা উপজেলা নেতৃবিন্দগন প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহনে বার বার ব্যার্থতার পরিচয় দিয়েছেন।
যা মোটেও ভাল সংগঠকের কাজ হতে পারেনা।

তাই আজ আপনারা নিজেদের কোনো নেতার ব্যক্তিগত নির্বাচনের প্রয়োজনে যুবলীগের সবাইকে ব্যাবহার করতেই চাইলেই পারবেননা। তার আগে একবার ভেবে দেখুন যুবলীগকে আপনাদের নেতৃত্বে কতটা সু-সংগঠিত রাখতে পেরেছেন। মূল দুইজন ব্যতীত কয়জন যুবলীগ নেতা কর্মীর নিয়মিত খোজ খবর নিয়েছেন।

যেহেতু উপজেলা যুবলীগ কতৃক আয়োজিত বিভিন্ন সভায় সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদককেই শুধু সমন্বয় করেন। তাই অন্যান্য দেরকে আপনাদের ব্যক্তিগত নির্বাচন করতে অনুরোধ করার কোন সুযোগ নেই।

যেহেতু পূর্নাঙ্গ কমিটির অন্যান্য নেতাকর্মীদের আপনাদের সেসব সভায় কোনো প্রয়োজন পড়েনা। তাহলে অংশ বিশেষ যুবলীগ নেতাদের সাথে নিয়ে আপনাদের নেয়া সিদ্ধান্তগুলোকে সাংগঠনিক সিদ্ধান্ত বলে সবার উপর দয়া করে চাপিয়ে দিবেন না।

কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সিদ্ধান্ত মোতাবেক উপজেলা নির্বাচনে ভাইস-চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন দেয়া হবেনা। তাহলে উক্ত পদের নির্বাচনে সংগঠনের সবার পছন্দের প্রার্থীর নির্বাচন করার অধিকার আছে।

তাই যুবলীগের কোন সদস্যকেই, ব্যক্তি বিশেষের নির্বাচন করতে বাধ্য করা ঠিক হবেনা।

আমি ব্যক্তিগত ভাবে আমার এলাকাবাসীকে সাথে নিয়ে ভাইস-চেয়ারম্যান পদে যার নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি, তিনি হলেন, কচুয়া উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে যুবসম্প্রদায়ের পছন্দের প্রার্থী তারুন্যের অহংকার ও প্রিয় ব্যাক্তিত্ব,কচুয়া পৌরসভা যুবলীগ সভাপতি জনাব মাহবুব আলম

কচুয়া উপজেলার সকল শ্রেণীর নাগরিকদের আমি বিনীত ভাবে অনুরোধ করছি।
আসুন আমরা সকলে মিলে ঐক্যবদ্ধ হয়ে
আধুনিক ও উন্নত কচুয়া উপজেলা গড়ার লক্ষে এবং কচুয়া উপজেলা পরিষদের নেতৃত্বে তারুন্যের অংশগ্রহণ নিশ্চিত করার লক্ষে, জনপ্রিয় যুবনেতা জনাব মাহবুব আলম ভাইকে সর্বাত্মক সমর্থন দিয়ে ভাইস-চেয়ারম্যান নির্বাচিত করি।

জয় বাংলা
জয় বঙ্গবন্ধু।

রুবেল আহমেদ প্রধান
যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক,৫নং (পশ্চিম) সহদেবপুর ইউনিয়ন যুবলীগ।
কচুয়া চাঁদপুর।

122 total views, 1 views today